• শিরোনাম

    চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের ঝুঁকিপূর্ণ মাতামুহুরী সেতু : চলতে হবে বিকল্প পথে, ঈদযাত্রায় শেষ নেই দুর্ভোগের

    মেরামতের জন্য ফের ১৪ ঘন্টা যান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা

    নিজস্ব প্রতিবেদক, চকরিয়া | ৩১ মে ২০১৯ | ২:২৭ পূর্বাহ্ণ

    মেরামতের জন্য ফের ১৪ ঘন্টা যান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা

    ব্যস্ততম চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের চকরিয়ায় দেবে যাওয়া মাতামুহুরী সেতুর এক লেনেরবেইলি সেতুর ওপর যানবাহন চলাচল করতে গিয়ে দুর্ভোগের শেষ নেই যাত্রী-সাধারণ ও পর্যটকের। গত ১০দিন ধরে দুইদিকের যানবাহন কিছুক্ষণ পর পর এক লেনে চলতে গিয়ে ঘন্টার পর ঘন্টা লেগে যাচ্ছে তাদের। এতে সেতুর উভয়প্রান্তে তীব্র যানজট ও দুর্ভোগে একাকার হয়ে পড়েছে মানুষ।
    এদিকে দেবে যাওয়া উত্তরাংশের লেনে গত একসপ্তাহ ধরে আরসিসি ঢালাই দেওয়ার পর দক্ষিণাংশের লেনেও একইভাবে আরসিসি ঢালাই দেওয়ার জন্য গতকাল বৃহস্পতিবার রাত থেকে কাজ শুরু করবে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।
    এতে গতকাল মধ্যরাত থেকে এই সেতু দিয়ে একেবারেই যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এ ব্যাপারে ছয় লেনের দ্বিতীয় মাতামুহুরী সেতু নির্মাণকারী ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান স্পেক্ট্রা ইঞ্জিনিয়ারিং লি. এবং সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের ক্রস বর্ডার রোড
    নেটওয়ার্ক ইমপ্রুভমেন্ট প্রজেক্ট বিভাগ বৃহস্পতিবার মধ্যরাত ১২ টা থেকে আজ শুক্রবার বেলা দুইটা পর্যন্ত সেতুর ওপর দিয়ে সকল ধরণের যানবাহন চলাচলে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে। গতকাল সকালে বিষয়টি মাইকিং করে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে।
    তবে আগের মতো বিকল্প হিসেবে মহাসড়কের চকরিয়ার বরইতলী রাস্তার মাথা থেকে পেকুয়া-বাঘগুজারা-লালব্রিজ-চৌঁয়ারফাঁড়ি-সাহারবিল হয়ে পৌরশহরের থানা রাস্তার মাথায় এসে ফের মহাসড়কে উঠতে হবে। এজন্য প্রায় ৪০ কিলোমিটার বাড়তি পথ পাঁড়ি দিতে হবে যানবাহনগুলোকে। বিকল্প সড়কটির কোন কোন স্থানে একেবারে সরু হওয়ায় এতে ঘন্টার পর ঘন্টা দীর্ঘ যানজটে আটকা পড়তে হবে যানবাহনগুলোকে।
    মাতামুহুরী সেতুর ওপর যানবাহন চলাচল ফের বন্ধ থাকার বিষয়ে চকরিয়া থানার ওসি মো. হাবিবুর রহমান বলেন, ‘বৃহস্পতিবার মধ্যরাত থেকে শুক্রবার বেলা দুইটা পর্যন্ত বিকল্প সড়কে যানবাহনগুলো চলাচলের সময় যাতে কোথাও যানজটের শিকার না হয় সেজন্য পুলিশের পক্ষ থেকে প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।’
    স্পেক্ট্রা ইঞ্জিনিয়ারিং এর সেফটি সুপারভাইজার মো. শফিকুল আলম জানান, পণ্যবোঝাই ভারী যানবাহন চলাচলে দেবে যাওয়া সেতুর এক লেনে বেইলি সেতু তৈরির পর এক লেনে যান চলাচল সচল রাখা হয় এতদিন। ওইসময়ে আরেক লেনে আরসিসি ঢালাই দেওয়া হয়। তাই এতদিন সচল রাখা লেনেও একইভাবে আরসিসি ঢালাই দিয়ে দুই লেনকেই যানবাহন চলাচলের উপযোগী করতে বৃহস্পতিবার মধ্যরাত থেকে পরদিন শুক্রবার বেলা দুইটা পর্যন্ত সকল ধরণের যানবাহন চলাচলে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে।’
    সচেতন লোকজন জানান, ৪০-৫০ টন ওজনের বালুভর্তি ডাম্পারসহ ভারী যানবাহন চলাচলে মাতামুহুরী সেতুটির এই দুরবস্থায় এবারের ঈদে বেশ ভোগান্তি বাড়াবে বাড়িফেরত যাত্রী-সাধারণকে। একইভাবে ঈদবাজারে আগত ক্রেতারাও তীব্র গরমের মধ্যে সেতুর দুইপ্রান্তে আটকা পড়ে ঘন্টা পর ঘন্টা দুর্ভোগ পোহাচ্ছে। যার প্রভাব এসে পড়ছে চকরিয়া পৌরশহর ও ঈদবাজারেও।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫১৬
    ১৭১৮১৯২০২১২২২৩
    ২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
    ৩১  
  • ফেসবুকে দৈনিক আজকের দেশ বিদেশ