• শিরোনাম

    তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতার আভাস

    আজ জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচন

    শহীদুল্লাহ্ কায়সার | ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ | ১:৫৬ পূর্বাহ্ণ

    আজ জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচন

    আজ ২৩ ফেব্রুয়ারি শনিবার কক্সবাজার জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচন। সকাল সাড়ে ৮ টা থেকে বিকেল ৩ টা পর্যন্ত সমিতির সদস্য ও সদস্য ৬৫০ আইনজীবী তাঁদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করছেন। নির্বাচিত করবেন আগামি ১ বছরের জন্য সমিতির নেতৃত্ব।
    কক্সবাজার জেলা আইনজীবী সমিতির ভবন ছাড়াও এবার প্রথম চকরিয়া আইনজীবী সমিতির ভবনে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। চকরিয়া এবং কুতুবদিয়া আদালতে আইন পেশায় জড়িত ৪৭ আইনজীবী চকরিয়ায় তাঁদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক সহ ১৭ টি পদের বিপরীতে প্রার্থী হয়েছেন ৩৪ আইনজীবী। প্রায় প্রত্যেক বছরের মতোই হচ্ছে এবারের সমিতির নির্বাচন। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ ও সমমনা রাজনৈতিক দল সমর্থিত আইনজীবীদের সাথে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় অবতীর্ণ হচ্ছেন বিএনপি- জামায়াত সমর্থিত আইনজীবীরা। সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের মনোনয়নে ও বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের সমর্থন সভাপতি পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন আ.জ.ম মঈন উদ্দিন ও সাধারণ সম্পাদক পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ইকবালুর রশীদ আমিন সোহেল।
    অন্যদিকে, বিএনপি-জামায়াত সমর্থিত আইনজীবীরা এবার তাদের প্যানেলের নামে পরিবর্তন এনেছেন। ইতঃপূর্বে জাতীয়তাবাদী ও ইসলামি মূল্যবোধে বিশ^াসী আইনজীবীদের প্যানেলে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করলেও আজ অনুষ্ঠিতব্য নির্বাচনে তাঁরা জাতীয় আইনজীবী ঐক্যফ্রন্ট মনোনীত প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন। এই প্যানেলের সভাপতি প্রার্থী হয়েছেন মোস্তাক আহমদ চৌধুরী এবং সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী হয়েছেন মোঃ আখতার উদ্দীন হেলালী। আওয়ামী লীগ ও সমমনা রাজনৈতিক দল সমর্থিত সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদ সমর্থিত অন্য প্রার্থীরা হলেন, সিনিয়র সহ-সভাপতি কফিল উদ্দিন চৌধুরী, সহ-সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম, সহ-সাধারণ সম্পাদক (সাধারণ) এস.এম শাহীনুল হক, সহ-সাধারণ সম্পাদক (হিসাব) মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন, পাঠাগার, তথ্য ও প্রযুক্তি সম্পাদক আরিফুল মোস্তফা, আপ্যায়ন ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক শওকত বেলাল। ৯টি নির্বাহী সদস্য পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী আইনজীবীরা হলেন, আমজাদ হোসেন, মাহবুবুর রহমান, বদিউল আলম সিকদার, মোহাম্মদ রফিক উদ্দিন, আব্বাস উদ্দিন চৌধুরী, চৌধুরী ফাহাদ বিন ফিরোজ, মাহামুদুল হক, শহীদুল্লাহ্ ফরহাদ এবং মোঃ মহিউদ্দীন।
    বিএনপি-জামায়াত সমর্থিত জাতীয় আইনজীবী ঐক্যফ্রন্ট মনোনীত অন্য প্রার্থীরা হলেন, সিনিয়র সহ-সভাপতি মোহাম্মদ ছাদেক উল্লাহ্, সহ-সভাপতি হোছাইন আহমদ আনসারী, সহ-সাধারণ সম্পাদক (হিসাব) মোহাং ফিরোজুল আলম, সহ-সাধারণ সম্পাদক (হিসাব) আবদুর রহমান, পাঠাগার ও তথ্য প্রযুক্তি সম্পাদক মোহাম্মদ মাহবুবুল আলম টিপু, আপ্যায়ন ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক মোহাম্মদ আবদুর রশিদ, সদস্য এস.এম. নুরুল ইসলাম, সব্বির আহমদ, নুরুল মোর্শেদ আমিন, ফারুক ইকবাল, মোহাম্মদ গোলাম ফারুক খান, মুহাম্মদ নুরুল ইসলাম, মঈনুল আমিন, মোহাম্মদ কলিম উল্লাহ্, মিজানুর রহমান ভুট্টো।
    এদিকে, অন্যান্য বছরগুলোর মতো চলতি বছরের নির্বাচন প্রথমদিকে উৎসবমুখর না হলেও শেষ মুহূর্তে এসে পরিস্থিতি হয়ে যায় ভিন্ন। গতকাল সন্ধ্যা থেকে আদালত পাড়া মুখরিত হয় আইনজীবীদের পদভারে। সবার মধ্যে দেখা গেছে নির্বাচনী আমেজ। প্রার্থীরা ব্যস্ত ছিলেন সহকর্মী আইনজীবীদের সঙ্গে কুশল বিনিময়ে। পুরো আইনজীবী ভবন এবং এর আশপাশে আলোচনার প্রধান বিষয় ছিলো সমিতির নির্বাচন।
    উল্লেখ্য, নির্বাচনের আগে সমিতির গঠনতন্ত্রেও আনা হয় পরিবর্তন। সহ-সভাপতি পদকে ভাগ করা হয়েছে দুই ভাগে। সিনিয়র সহ-সভাপতি ও সহ-সভাপতি দুই পদে এবার ভোটাররা ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। এ ছাড়া পাঠাগার সম্পাদক নাম পরিবর্তন করে পাঠাগার, তথ্য ও প্রযুক্তি সম্পাদক করা হয়েছে। নির্বাচন পরিচালনার জন্য গঠন করা হয়েছে ৭ সদস্য বিশিষ্ট একটি কমিটি। জ্যেষ্ঠ আইনজীবী মুহাম্মদ শাহাজাহাকে প্রধান নির্বাচন কমিশনার, জ্যেষ্ঠ আইনজীবী শ্যামল কান্তি চৌধুরী ও মুহাম্মদ বাকেরকে সহকারি প্রধান নির্বাচন কমিশনার করে গঠিত কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন, জ্যেষ্ঠ আইনজীবী নুর উল আলম, আবু ছিদ্দিক, ফরিদ আহমদ ও সিরাজ উল্লাহ।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে দৈনিক আজকের দেশ বিদেশ