সোমবার ১৮ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৪ঠা মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

‘ক্ষমতা থাকলে আমাকে আটকে দেখাক!’ মন্ত্রীকে চ্যালেঞ্জ কঙ্গনা’র

দেশবিদেশ অনলাইন ডেস্ক   |   শনিবার, ০৫ সেপ্টেম্বর ২০২০

‘ক্ষমতা থাকলে আমাকে আটকে দেখাক!’ মন্ত্রীকে চ্যালেঞ্জ কঙ্গনা’র

মুম্বাই আসতে দেওয়া হবেনা শুনে ক্ষেপেছেন বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াত। বললেন, ‘মহারাষ্ট্র কারও বাবার নয়, ক্ষমতা থাকলে আমার মুম্বাই আসা আটকে দেখাক কেউ। আমি বুক ফুলিয়ে বলছি যে আমিও একজন মারাঠি, এবার আমার কিছু করার হলে করে নিন!’

প্রথম থেকেই সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুরহস্য নিয়ে সরব বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াত। বলিউডের এই ‘আয়রন লেডি’ করণ জোহর, সলমন খান, মহেশ ভাট থেকে শুরু করে যশ রাজ ফিল্মসের কর্ণধার আদিত্য চোপড়ার বিরুদ্ধেও একের পর এক কুৎসিত মন্তব্যে আক্রমণ করতে ছাড়েন নি। ইন্ডাস্ট্রির ডাকসাইটে এই তারকাদের ‘নেপোটিজমের ঝাণ্ডাধারী’ বলে কটাক্ষও করেছেন কঙ্গনা। সুশান্তকে অবসাদের দিকে ঠেলে দেওয়ার জন্য প্রকাশ্যেই এদেরকেই দায়ি করেছেন।

ভারতে লকডাউন শুরু হতেই মুম্বাই ছেড়ে হিমাচল প্রদেশের মানালিতে নিজেদের বাড়িতেই অবস্থান করছিলেন কঙ্গনা। আর সেখান থেকেই রণংদেহী মেজাজে সোশ্যাল মিডিয়ায় একের পর এক মন্তব্য করে চলেছেন তিনি। যুদ্ধ ঘোষনা করেছিলেন মুম্বাইয়ের ‘মুভি মাফিয়া’দের বিরুদ্ধে। তাই এই অভিনেত্রীকে নিয়ে আশঙ্কা প্রকাশ করছেন তার অনুরাগী থেকে শুরু করে বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতারা।

‘ক্ষমতা থাকলে আমাকে আটকে দেখাক!’ মন্ত্রীকে চ্যালেঞ্জ কঙ্গনা’র

কিছুদিন আগেই সোশ্যাল মিডিয়ায় কঙ্গনা মন্তব্য করেছিলেন মুম্বই পুলিশের থেকে তিনি নিরাপত্তা চান না। অন্য আরেকটি পোস্টে লিখলেন, ‘মুম্বাইকে কেন পাক অধিকৃত কাশ্মীরের মতো মনে হচ্ছে?’

এসব মন্তব্যের জেরে শুক্রবার মহারাষ্ট্রের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অনিল দেশমুখ সাফ জানিয়ে দিয়েছেন যে, ‘কঙ্গনার কোনও অধিকার নেই মুম্বাইতে থাকার। ও যা মন্তব্য করেছে, তার ভিত্তিতে ওর বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপও নেওয়া যেতে পারে’। আর অনিল দেশমুখের এই মন্তব্যের পরই রণংদেহী কঙ্গনা ময়দানে নেমে হুংকার ছাড়েন যে, ‘মহারাষ্ট্র কারও বাবার নয়, আমাকে আটকে দেখাক ক্ষমতা থাকলে!’

মহারাস্ট্রের রাজনৈতিক দল শিবসেনার প্রতি ক্ষোভ প্রকাশ করে কঙ্গনা বললেন, ‘দেখছি অনেকেই আমাকে মুম্বাই না আসার জন্য হুমকি দিচ্ছেন। এই হুমকি শুনে আমি সিদ্ধান্ত নিয়েছি সামনের সপ্তাহেই আসব মুম্বাইতে। সেপ্টেম্বরের ৯ তারিখ আসছি। ফ্লাইট কখন ল্যান্ড করবে জানিয়ে দেব। কারও বাবার ক্ষমতা হলে আমাকে আটকে দেখাক!”

কঙ্গনার কথায়, ‘কারও যোগ্যতা নেই! সাহসও হয়নি গত একশো বছরে মারাঠিদের গর্ব নিয়ে বলিউড কোনও সিনেমা বানানোর। আমি নিজের প্রাণ-কেরিয়ার সব বাজি লাগিয়ে শিবাজি মহারাজ আর রানি লক্ষ্মীবাইকে নিয়ে সিনেমা বানিয়েছি। মহারাষ্ট্রকে নিয়ে যারা এখন এত গালভরা কথা বলছে, সেসব ঠিকাদারকে গিয়ে জিজ্ঞেস করুন তো ওরা মহারাষ্ট্রকে নিয়ে কী করেছে?’

‘ক্ষমতা থাকলে আমাকে আটকে দেখাক!’ মন্ত্রীকে চ্যালেঞ্জ কঙ্গনা’র

তার বাক স্বাধীনতা কেড়ে নেওয়া হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেছেন কঙ্গনা। আর তার ভিত্তিতেই হরিয়ানার মন্ত্রী অনিল ভিজের মন্তব্য করেছেন, ‘কঙ্গনাকে পুলিশি নিরাপত্তা দেওয়া উচিত। ওর বাকস্বাধীনতাকেও আটকানো উচিত নয়।’

গত ৩০ আগস্ট বিজেপি নেতা রাম কদম কঙ্গনা রানাউতের নিরাপত্তার দাবি জানিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি পোস্ট করেন। তাতে তিনি অভিযোগ করেন যে, মহারাষ্ট্র সরকার এবিষয়ে কিছুই করছে না। বিজেপি নেতা রাম কদম’র দেয়া পোস্টটি শেয়ার করে কঙ্গনাও একটি পোস্ট দিয়েছেন। তাতে তিনি লিখেছিলেন, ‘আমার কথা চিন্তা করার জন্য ধন্যবাদ স্যর। তবে আমি আসলে এখন মুভি মাফিয়াদের থেকেও বেশি ভয় পাচ্ছি মুম্বাই পুলিশকে। মুম্বাইয়ে আমি হিমাচল প্রদেশ সরকার কিংবা কেন্দ্র সরকারের থেকে নিরাপত্তা চাই, দয়া করে মুম্বাই পুলিশ নয়।’

উল্লেখ্য, ডিসেম্বরে রণি স্ক্রুওয়ালার প্রযোজনায় ‘তেজস’ ছবির শুটিং শুরু করার কথা রয়েছে কঙ্গনার। ছবিতে ভারতীয় নিমান বাহিনীর পাইলটের চরিত্রে অভিনয় করেছেন বলিউডের ‘ক্যুইন’।

Comments

comments

Posted ১০:২০ অপরাহ্ণ | শনিবার, ০৫ সেপ্টেম্বর ২০২০

ajkerdeshbidesh.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সম্পাদক
মোঃ আয়ুবুল ইসলাম
প্রধান কার্যালয়
প্রকাশক : তাহা ইয়াহিয়া কর্তৃক প্রকাশিত এবং দেশবিদেশ অফসেট প্রিন্টার্স, শহীদ সরণী (শহীদ মিনারের বিপরীতে) কক্সবাজার থেকে মুদ্রিত
ফোন ও ফ্যাক্স
০৩৪১-৬৪১৮৮
বিজ্ঞাপন ও সার্কুলেশন
০১৮১২-৫৮৬২৩৭
Email
ajkerdeshbidesh@yahoo.com