• শিরোনাম

    জাতীর দূর্যোগে বদরখালী সমিতির নীরব ভূমিকায় হতাশ ১৫০০ সদস্য

    আজকের দেশবিদেশ ডেস্ক : | ০৩ এপ্রিল ২০২০ | ৪:৪৮ অপরাহ্ণ

    জাতীর দূর্যোগে বদরখালী সমিতির নীরব ভূমিকায় হতাশ ১৫০০ সদস্য

    জাতীর দূর্যোগে এশিয়ার বৃহত্তম বদরখালী সমবায় কৃষিও উপনিবেশ সমিতি’র সভ্য পোষ্যদের মাঝে সাহায্য পৌছিয়ে দেয়া সময়ের দাবী। এমন দুর্দিনে সমবায় সমিতির নেতৃবৃন্দের নীরব ভুমিকায় সভ্যগন হতাশ হয়ে পড়েছেন বলে জানা গেছে ।

    জানা যায়, সমিতির কর্ম এলাকায় অবকাঠামোগত অভূতপূর্ব উন্নয়ন সাধনের মাধ্যমে ১৯২৯ সাল থেকে অদ্যবধি পর্যন্ত প্রায় ৫০ হাজার জনগোষ্ঠীর বাস্তবধর্মী সেবা দিয়ে আসছে এ সমিতি। যেটি জেলায় নয়, পুরো বাংলাদেশকে ছাড়িয়ে দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে বৃহত্তম কৃষি উপনিবেশ সমবায় সমিতি হিসেবে নজির স্থাপন করেছে।

    বিশেষ করে এ সমিতি কৃষিবান্ধব হিসেবে এতদ্বাঞ্চালের ব্যাপক অবদান রাখায় বিগত ২০০৯ সালে ৪০তম জাতীয় সমবায় দিবসে কৃষিভিত্তিক শ্রেষ্ঠ সমবায় প্রতিষ্ঠান হিসাবে স্বর্ণপদক ও সনদ প্রদান করেন বঙ্গবন্ধুর কন্যা গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

    বিশ্ব বিপর্যয়ের অংশ এখন বাংলাদেশও। নোভেল করোনা ভাইরাসের কারণে আতঙ্ক যেমন বাড়ছে তেমনি সচেতনতা বাড়াতে স্বেচ্ছাশ্রমে কাজ করছে বিভিন্ন সংগঠন। মানবিকতায় এগিয়ে আসছেন দেশের তরুণরা। নিজেদের নিরাপদ রাখতে ইতোমধ্যেই সরকার ছুটিও ঘোষণা করেছে। প্রাণঘাতী এই ভাইরাস নিয়ে নানা কাজের অংশ হিসেবে তরুণদের পাশাপাশি সবার এগিয়ে আসা প্রয়োজন বদরখালী সমবায় কৃষিও উপনিবেশ সমিতির। দেশের ক্রান্তিকালে সবারই দাঁড়াতে হয় হাতে হাত ধরে, কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে। প্রস্তুতি নিতে হবে সংকট সমাধানের। মানবতা ডাকছে প্রতিনিয়ত সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে এগিয়ে আসতে হবে স্ব স্ব অবস্থান থেকে।

    কিন্তু আমাদের বদরখালী সমবায় কৃষিও উপনিবেশ সমিতি দক্ষিণ এশিয়ার বৃহত্তর প্রতিষ্ঠানের নাম। বদরখালীর সব জায়গা জমির একমাত্র মালিক হচ্ছে বদরখালী সমবায় কৃষিও উপনিবেশ সমিতি। স্থানীয়রা জানান বিশ্ব নোভেল করোনা ভাইরাসের জনসচেতনতা মূলক কোন প্রকার প্রচার প্রচারণা বদরখালী সমবায় কৃষিও উপনিবেশ সমিতির উদ্যোগে করতে দেখা যায়নি।

    জাতীর ক্রান্তিলগ্নে বদরখালীর ১৫০০ হাজার সভ্যদের মাঝে সহযোগিতা’র হাত বাড়িয়ে দিলে বিশ্বের দরবারে বদরখালী সমবায় কৃষিও উপনিবেশ সমিতির নাম সেবা প্রতিষ্ঠান হিসেবে স্বর্ণ অক্ষরে লিখা থাকবে।বর্তমানে করোনা ভাইরাস নিয়ে পুরো বিশ্ব আতংকে। বদরখালী সমিতির সভ্যরা জানান সব চাইতে বড় সেবা হচ্ছে মানব সেবা।আমরা আপনাদেরকে ভোটে নির্বাচিত করেছি মানব সেবা করার জন্য। বদরখালীর সমবায়ী জনতা নিয়ে ত আপনারা সভাপতি,সহ-সভাপতি,সাধারণ সম্পাদক, পরিচালক নির্বাচিত হয়ে থাকেন। সাধারণ সভ্যরা বাচঁলেই ত আপনারা বাচঁবেন।বদরখালী সমবায় কৃষিও উপনিবেশ সমিতি হচ্ছে আমাদের প্রাণ। অত্র সমিতির সভ্যরা বলেন বদরখালী সমিতির ১৫০০ হাজার সভ্যের বাড়ীতে বিশ্ব মহামানী করোনা ভাইরাস দুরসময়ে ত্রাণ সামগ্রী বিরতণ করলে সমিতির গরীব অসহায় মানুষ বর্তমান পরিচালনা কমিটির যোগ্য নেতৃত্ব প্রমান হবে। সমিতির সাধারণ সভ্য সূত্র জানা যায় অত্র সমিতিতে মহামানী বিষয়ে সব সময় তহবিল মজুদ থাকে।পরিচালনা কমিটি চাইলে সমবায় জনতার মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা কোন ব্যাপার না। মানুষের যদি না বাচে এত টাকা পয়সার প্রয়োজন কি? বিশ্বের ধনি রাষ্ট্র ইতালিতে দেখা যায় বস্তাভর্তি টাকা রাস্তায় পেলে দিচ্ছে। পেলে দেয়া টাকা কেউ কুড়িয়ে নিচ্ছে না মৃত্যুর ভয়ে।আর বদরখালী সমবায় কৃষিও উপনিবেশ সমিতির টাকা গুলি আপনার সমবায়ী জনতার জাতীর ক্রান্তিলগ্নে আর্থিক সহযোগিতা দিয়ে টাকা গুলি ব্যবহার করলে আপনাদের সমবায়ী জনতার উপকার হবে। আমাদের এ লিখা কারোও বিপক্ষে নয় ;বদরখালীর সমবায়ী জনতার পক্ষে।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫১৬
    ১৭১৮১৯২০২১২২২৩
    ২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
    ৩১  
  • ফেসবুকে দৈনিক আজকের দেশ বিদেশ