সোমবার ৬ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

রাখাইনে ফের নির্যাতনের অভিযোগ ঃ বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের আশংকা

নাইক্ষ্যংদিয়ায় জড়ো হয়েছে সহস্রাধিক রোহিঙ্গা

নিজস্ব প্রতিনিধি, টেকনাফ   |   সোমবার, ২৭ আগস্ট ২০১৮

নাইক্ষ্যংদিয়ায় জড়ো হয়েছে সহস্রাধিক রোহিঙ্গা

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গা নির্যাতনের এক বছর পূর্ণ হতেই ফের নতুন করে রোহিঙ্গাদের উপর নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানা গেছে, রাখাইনের বিভিন্ন গ্রামে যেসম রোহিঙ্গা এখনো রয়ে গেছে তাদেরকে বিভিন্ন ধরনের নির্যাতন ও দেশ ত্যাগে চাপ প্রয়োগ করছে মিয়ানমার সেনাবাহিনী। এরই প্রেক্ষিতে ইতোমধ্যে হাজারেরও বেশি রোহিঙ্গা রাখাইন ছেড়ে বাংলাদেশে পালিয়ে আসতে নাফ নদের মিয়ানমারে সীমান্ত এলাকা নাইক্ষ্যংদিয়া নামক চরে দু’দিন ধরে তাবু করে অবস্থান করছে বলেও জানা যায়।
রোহিঙ্গা সূত্রে জানা যায়, মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে পাহাড়ের পশ্চিম ও পূর্ব তীরের বিভিন্ন গ্রামে বসবাস করে আসছিল রোহিঙ্গারা। গত বছর ২৫ আগস্ট রাখানের রোহিঙ্গাদের উপর সেনা ও মগদের নির্মম নির্যাতনের মুখে পাহাড়ের পশ্চিম অংশের ঢংখালী, গর্জনদিয়া, গদুছড়া, খুইন্যা পাড়া, মন্নি পাড়া, সাইরা পাড়া, সিকদার পাড়া, ফাতনজা, কিলায় ঢং ও হাচ্ছুরতা এলাকায় বসবাসকারী প্রায় কয়েক লক্ষাধিক রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে আসে। তবে সেময় পাহাড়ের পূর্ব পাড়ের সিন্দিপ্রাং ও পুইমালীসহ বেশ কয়েকটি গ্রামে রোহিঙ্গাদের বাড়ি ঘরে আগুন দিলে সেখানকার অনেক রোহিঙ্গাও বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছিল।
রোহিঙ্গাদের নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানা যায়, গত ২৩ আগস্ট থেকে রাখাইন রাজ্যের পাহাড়ের পূর্ব পাড়ের রোহিঙ্গা অধ্যূষিত এলাকা আলিয়ং, গুদামপাড়া, জংশং, পুইমালী ও সিন্দিপ্রাং এলাকায় যেসব রোহিঙ্গা বসতি রয়েছে সেখানে মিয়ানমার সেনাবাহিনী তাদের উপর নতুন করে নির্যাতন চালাচ্ছে। শুধু তাই নয়, সেখানকার রোহিঙ্গাদের বিভিন্ন ধরনের হুমকি-ধমকি সহ তাদের বাড়ির গবাদি পশু ও গোলার ধান লুট করে নিয়ে যাওয়ার খবরও পাওয়া গেছে। পাশাপাশি ওইসব রোহিঙ্গাদের রাখাইন ছেড়ে বাংলাদেশে পালিয়ে যেতেও নির্দেশ দিচ্ছে বলে জানা যায়।
মিয়ানমার সেনাদের এমন আচরণে সেখানকার বসবাসরত রোহিঙ্গারা তাদের উপর আবারো সেনা ও মগদের পরিকল্পিত বর্বর পাশবিক নির্যাতনের আশংকা করছে। গতবছর সংঘাতের পর বাংলাদেশে পালিয়ে আসা কয়েকজন রোহিঙ্গার মাধ্যমে রাখাইনে যোগাযোগের ভিত্তিতে জানা গেছে, নতুন করে শুরু হওয়া নির্যাতন ও হুমকির মুখে ইতোমধ্যে প্রায় সহস্রাধিক রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে আসতে আপতত নাইক্ষ্যংদিয়া নামক চরে জড়ো হয়েছে। গত দু’দিনে নাংক্ষ্যংদিয়ায় জড়ো হওয়া রোহিঙ্গাদের সংখ্যাও বাড়ছে। তারা যেকোন মুহুর্তে বাংলাদেশে ঢুকে পড়তে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এদিকে নতুন করে রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ ঠেকাতে নাফ নদ ও টেকনাফ সীমান্তের বিভিন্ন পয়েন্টে প্রশাসনের পক্ষ থেকে নজরদারি বাড়ানো হয়েছে। বিশেষ করে নাফ নদে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)’ ও কোস্টগার্ডের টহল জোরদার করা হয়েছে।

Comments

comments

Posted ২:২৬ পূর্বাহ্ণ | সোমবার, ২৭ আগস্ট ২০১৮

ajkerdeshbidesh.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সম্পাদক
মোঃ আয়ুবুল ইসলাম
প্রধান কার্যালয়
প্রকাশক : তাহা ইয়াহিয়া কর্তৃক প্রকাশিত এবং দেশবিদেশ অফসেট প্রিন্টার্স, শহীদ সরণী (শহীদ মিনারের বিপরীতে) কক্সবাজার থেকে মুদ্রিত
ফোন ও ফ্যাক্স
০৩৪১-৬৪১৮৮
বিজ্ঞাপন ও সার্কুলেশন
০১৮১২-৫৮৬২৩৭
Email
ajkerdeshbidesh@yahoo.com