• শিরোনাম

    মহেশখালী ডিজিটাল আইল্যান্ড

    পরিবর্তনের ছোঁয়া গ্রামের তৃণমূলে

    নিজস্ব প্রতিবেদক | ২৮ জানুয়ারি ২০২০ | ২:৩০ পূর্বাহ্ণ

    পরিবর্তনের ছোঁয়া গ্রামের তৃণমূলে

    তাসনিয়া রহমান স্নেহ, মহেশখালী উপজেলার আদিনাথ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রী। অজ পাড়া-গায়ের স্কুলের শিক্ষার্থী হলেও প্রতিদিনই সে পাঠ নিচ্ছে ঢাকার একজন অভিজ্ঞ শিক্ষকের কাছ থেকে। সরাসরি দুর শিক্ষণের মাধ্যমে সে ইংরেজী অংক, বাংলা বিষয়ে পাঠ নিচ্ছে। ঢাকার জাগো ফাউন্ডেশনের জাগো ডিজিটাল স্কুলের শিক্ষক ফারিহা আহমদ ঢাকায় বসেই তাসনিয়াদের ইংরেজী পড়াচ্ছেন। এসময় ক্লাসে মডারেটের ভূমিকা পালন করছিলেন ঐ স্কুলের শিক্ষক পিযুষ পাল। তাসনিয়ার মতো ফারিহা ইসলাম, বুলবুল আহমদ সহ ক্লাসের অন্য শিক্ষার্থীরা খুশী দুর শিক্ষণের শিক্ষক ফারিহা আহমদের ইংরেজী বিষয়ে ক্লাস নেয়ায়।
    স্কুল শিক্ষার্থী তাসনিয়া জানান- ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে আমরা ঢাকার ম্যাডাম থেকে পড়া নিচ্ছি। এতে আমরা আনন্দ পাচ্ছি, নতুন নতুন অনেক কিছু শিখছি। আমাদের কোনো সমস্যা হচ্ছে না।
    গোরকঘাটার আনোয়ারা বেগম তার ৬ বছরের মেয়েকে নিয়ে বলেছেন মহেশখালী হাসপাতালে ডাক্তার দেখাতে। মহেশখালী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ডাক্তার শিব শেখর ভট্টচার্য্য ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের শরণাপন্ন হয়ে আনোয়ারা বেগমের মেয়ের চর্ম রোগের ব্যবস্থাপত্র নিলেন। জটিল রোগ হওয়ায় আনোয়ারা বেগম তার মেয়েকে নিয়ে কক্সবাজার কিংবা চট্টগ্রামে নিয়ে গিয়ে চিকিৎসা নেয়ার ইচ্ছা থাকলেও এখন আর তাকে দুরে যেতে হচ্ছে না। কারণ সে মহেশখালী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে বসেই ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বিশেষজ্ঞ ডাক্তার দেখাতে পারছে। আনোয়রা বেগম জানান- মহেশখালীতে বসেই তার মেয়ের বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের চিকিৎসা করাতে পেরে সে খুশী। তার সময় এবং অর্থ দুটোই বেঁচে গেল।
    মহেশখালীর গোরঘাটায় দিদারুল ইসলাম এবং হোয়ানকের মারুফা নাসরিন লোপা, তারা তরুন উদ্যোক্তা। তাদের মতো আরো নয় জন উদ্যোক্তা মিলে ই-কমার্সের মাধ্যমে মহেশখালীর শুটকি সারা দেশে ছড়িয়ে দিচ্ছে। মারুফা জানান-মৎস্য উৎপাদনকারীদের বিষমুক্ত শুটকি উৎপাদন করে। তারা প্রথমে মৎস্যজীবীদের সু-শিক্ষা দিচ্ছে। তারপর তাদের কাছ থেকে বিষমুক্ত শুটকি নিয়ে ই-কমার্সের মাধ্যমে তারা সারা দেশে বিক্রি করছে। মহেশখালীতে বেড়াতে আসা পর্যটকেরাও তাদের কাছ থেকে শুটকি কিনে নিয়ে যাচ্ছে।
    এসবই সম্ভব হয়েছে দ্রæতগতির ইন্টারনেট গতির মাধ্যমে ই-সেবা দিয়ে মহেশখালীকে ইন্টারনেটের আওতায় নিয়ে আসার কারণে। ডিজিটাল আইল্যান্ড হিসেবে মহেশখালীকে পাইলট প্রকল্প হিসেবে গ্রহণ করে বিভিন্ন ক্ষেত্রে এই সেবা দেয়া হচ্ছে।
    সোমবার কক্সবাজারের একদল সাংবাদিক ডিজিটাল আইল্যান্ড মহেশখালী উপজেলায় বিভিন্ন ই-সেবা, কেন্দ্র, ই-কমার্স সেন্টার এবং ডিজিটাল স্কুল পরিদর্শনকালে ডিজিটাল আইল্যান্ডের এই চিত্র ফুটে উঠে। বর্তমান সরকার তথ্য প্রযুক্তির সেবা গ্রামের তৃনমূল পর্যায়ে পৌঁছে দেয়ার লক্ষ্যে পাইলট প্রকল্প হিসেবে মহেশখালী দ্বীপকেই বেঁচে নিয়ে ক্রমান্বয়ে বিভিন্ন ক্ষেত্রে এই ই-সেবা শুরু করেছে।
    আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা (আইওএম)-এর ডিজিটাল দ্বীপ প্রকল্পটি দেশের দ্রæততম ইন্টারনেট গতির মাধ্যমে মহেশখালীকে একটি বিচ্ছিন্ন উপদ্বীপ থেকে একটি উদীয়মান প্রযুক্তি কেন্দ্র হিসাবে রূপান্তর করতে সহায়তা করছে। এই প্রকল্পটি আইওএম বাংলাদেশ মিশনের প্রথম পাবলিক-প্রাইভেট-পার্টনারশিপ (পিপিপি) প্রকল্প। আইওএম, কোরিয়া টেলিকম, বাংলাদেশ সরকারের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ এবং বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল যৌথভাবে এই প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করছে।
    প্রকল্পটির অর্জনগুলোর মধ্যে রয়েছে মহেশখালীতে বিদ্যমান একটি টাওয়ার সংস্কার এবং গিগা মাইক্রোওয়েভ (এরএঅ সরপৎড়ধিাব) স্থাপন যার ফলে মহেশখালীর বাসিন্দারা ১০০ এমবিপিএসেরও বেশি গতিসম্পন্ন ইন্টারনেট সুবিধা পাচ্ছেন। মহেশখালীর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো জামিরুল ইসলাম বলেনঃ “ডিজিটাল আইল্যান্ড একটি বহুমুখী প্রকল্প যা বাংলাদেশের অন্যতম বিচ্ছিন্ন জনগোষ্ঠীটিকে দেশের দ্রæততম গতির ইন্টারনেট মাধ্যমে বিশ্বের সাথে যুক্ত করেছে।“
    তিনি আরো বলেন- দ্রæততর ইন্টারনেট সুবিধা স্থানীয় জনগোষ্ঠীটিকে উন্নত স্বাস্থ্য, শিক্ষা এবং কর্মসংস্থানের পরিষেবাগুলো নিশ্চিতে ভূমিকা রাখছে। ইন্টারনেটের মাধ্যমে দ্বীপটির বাসিন্দাদের শিক্ষা’র সরঞ্জামাদি এবং চিকিৎসা নিশ্চিত করার জন্য অনলাইন স্বাস্থ্য পরিষেবাও দেওয়া হয়। স্থানীয় শুটকি উৎপাদনকারীদের উৎপাদিত শুটকি বিক্রয়ের জন্য ই-কমার্সের মাধ্যমে কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে। টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য (এসডিজি) পূরণে ডিজিটাল আইল্যান্ড দ্বীপ উদ্যোগও বাংলাদেশের অগ্রগতির একটি অংশ।
    আর্ন্তজাতিক অভিবাসন সংস্থা (আইওএম) এর ট্রানজিশন রিকভারি ডিভিশন (টিআরডি) এর প্রধান পেট্রিক শেরিগনন জানান-মহেশখালী দ্বীপটিকে এই প্রকল্পের জন্য নির্বাচন করা হয়েছিল কারণ এটি বাংলাদেশের অন্যতম স্বল্প-উন্নত জনগোষ্ঠী। এখানে নিরক্ষরতার হার বেশি এবং মাটির লবণাক্ততা কৃষিফলনকে বাধাগ্রস্থ করে। স্থানীয় যুবসমাজ দ্বীপ থেকে স্থানান্তরিত হচ্ছে এর ফলে এই দ্বীপের ভবিষ্যৎ প্রশ্নবিদ্ধ হচ্ছে। ডিজিটাল দ্বীপ প্রকল্পটি’র লক্ষ্য হল সরকারের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের বিদ্যমান জনসুবিধাদির আরো প্রসার ঘটিয়ে মহেশখালীর বাসিন্দাদের জন্য সুযোগ তৈরি করা। আইওএম গত ২১ অক্টোবর, ২০১৯-এ এই দ্বীপে আয়োজন করে ‘ডিজিটাল আইল্যান্ড ফেস্ট’। এই আয়োজনে স্থানীয় শিক্ষার্থী ও বাসিন্দারা নানা সামাজিক-সাংস্কৃতিক পরিবেশনার এবং ভিডিও-অনলাইনের বিভিন্ন বিষয়ে প্রতিযোগীতার মাধ্যমে ‘ডিজিটাল দ্বীপ’-কে তুলে ধরে।
    ডিজিটাল দ্বীপের কয়েকটি বৈশিষ্ট্য হলঃ ২৫টি স্থানীয় সরকারি প্রতিষ্ঠানে দ্রæত গতির ইন্টারনেট সংযোগ স্থাপিত হয়েছে। জাগো ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে দশটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের এক-তৃতীয় শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের দূর-শিক্ষণ পরিষেবা দেওয়া হচ্ছে। এই প্রক্রিয়ায় রাজধানী ঢাকা’র শিক্ষকরা মহেশখালী দ্বীপের শিক্ষার্থীদের তাৎক্ষণিক ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ইংরেজী কোর্সে শিক্ষা প্রদান করেন। প্রকল্পটি ই-টিচিং এবং ই-লার্নিংয়ের মাধ্যমে স্থানীয় শিক্ষকদের সক্ষমতা উন্নত করছে। প্রকল্পটি শেষ হওয়ার পরে, শিক্ষা-উপাদানগুলো স্থানীয় কর্তৃপক্ষ এবং শিক্ষকদের কাছে হস্তান্তর করা হবে।
    কীটনাশক এবং সংরক্ষণকারী রাসায়নিক উপকরণগুলোর ব্যবহার কমিয়ে স্থানীয়দের জৈব কৃষি এবং অর্গানিক পদ্ধতিতে মাছ শুকানোতে উৎসাহিত করা হচ্ছে। পাশপাশি ই-কমার্সের মাধ্যমে উৎপাদিত পণ্য বিক্রয়ের মাধ্যমে আয় বাড়ানো ও মধ্যস্বত্তভোগীদের দৌরাত্ম্য দূর করতে উৎসাহিত করা হচ্ছে।
    চারটি কমিউনিটি স্বাস্থ্য ক্লিনিক এবং একটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মাধ্যমে মোবাইল স্বাস্থ্য পরিষেবা পাওয়া যাবে। এসব পরিষেবাগুলো হলঃ স্বয়ংক্রিয় স্বাস্থ্যগত রেকর্ড সিস্টেম, টেলিমেডিসিন পরামর্শ, মোবাইল স্বাস্থ্যসেবা ডিভাইসগুলোর মাধ্যমে নির্ণয় যেমন মূত্র পরীক্ষক, আল্ট্রাসাউন্ড ডিভাইস এবং রক্ত ??পরীক্ষক ইত্যাদি।
    স্থানীয় এবং সরকারী কর্মকর্তাদের কম্পিউটার দক্ষতা বিষয়ক প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়েছে। সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সাথে সমন্বয় করে একটি কমিউনিটি ক্লাব এবং কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কেন্দ্র-এর মাধ্যমে কম্পিউটার এবং দ্রæত গতির ইন্টারনেট সর্বসাধারণের জন্য উন্মুক্ত করা হয়েছে।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে দৈনিক আজকের দেশ বিদেশ