• শিরোনাম

    পাকিস্তানের কাছে হেরে দক্ষিণ আফ্রিকার বিদায়

    দেশবিদেশ অনলাইন ডেস্ক | ২৪ জুন ২০১৯ | ১২:৩০ পূর্বাহ্ণ

    পাকিস্তানের কাছে হেরে দক্ষিণ আফ্রিকার বিদায়

    চলতি বিশ্বকাপের ৩০তম ম্যাচে মুখোমুখি হয় দক্ষিণ আফ্রিকা-পাকিস্তান। বাঁচা-মরার লড়াইয়ে পাকিস্তানের বিপক্ষে ৪৯ রানে হেরে দ্বাদশ বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিতে হলো প্রোটিয়াদের। যদিও তাদের হাতে আছে আরও দুটি ম্যাচ। আফগানিস্তানের পর দ্বিতীয় দল হিসেবে এই বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিল ফাফ ডু প্লেসিস, হাশিম আমলা, কেগিসো রাবাদা, জেপি ডুমিনি, কুইন্টন ডি ককরা। এদিকে, ৬ ম্যাচে ৫ পয়েন্ট নিয়ে পাকিস্তান উঠে এলো ৭ নম্বরে।

    লন্ডনের লর্ডসে শনিবার (২৩ জুন) বাংলাদেশ সময় দুপুর সাড়ে তিনটায় শুরু হয় ম্যাচটি। ম্যাচটি সরাসরি সম্প্রচার করে গাজী টিভি। নিজেদের ষষ্ঠ ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন পাকিস্তানের অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ। নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে পাকিস্তান তোলে ৩০৮ রান। জবাবে, ৫০ ওভারে ৯ উইকেট হারানো প্রোটিয়াদের ইনিংস থামে ২৫৯ রানের মাথায়।

    টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে পাকিস্তানের দুই ওপেনার ইমাম উল হক আর ফখর জামান তুলে নেন ৮১ রান। দলীয় ১৫তম ওভারে ফখর জামান বিদায় নেন। দলকে ভালো একটা শুরু দিয়ে ফেরেন ৪৪ রান করে। তার ৫০ বলের ইনিংসে ছিল ৬টি চার আর একটি ছক্কার মার। আরেক ওপেনার ইমাম উল হক করেন ৪৪ রান। তার ৫৮ বলের ইনিংসে ছিল ছয়টি বাউন্ডারির মার। তিন নম্বরে নামা বাবর আজম রানের চাকা সচল রাখেন। চলতি বিশ্বকাপে ইনফর্মে থাকা এই পাকিস্তানি তারকা ৮০ বলে সাতটি বাউন্ডারিতে করে ৬৯ রান।

    মোহাম্মদ হাফিজ ৩৩ বলে এক ওভার বাউন্ডারিতে করেন ২০ রান। ২২৪ রানে টপঅর্ডারের চার ব্যাটসম্যান ফিরলেও শোয়েব মালিকের জায়গায় একাদশে সুযোগ পাওয়া হারিস সোহেল দারুণ ব্যাট করতে থাকেন। ইমাদ ওয়াসিম ১৫ বলে তিন বাউন্ডারিতে ২৩ রান করে বিদায় নেন। ওয়াহাব রিয়াজকে একটু উপরে ব্যাট করতে পাঠালেও ৪ রানের বেশি করতে পারেননি। ইনিংসের শেষ ওভারে হারিস সোহেল আউট হওয়ার আগে করেন ৮৯ রান। তার ৫৯ বলের ইনিংসে ছিল ৯টি চার আর তিনটি ছক্কার মার।

    দক্ষিণ আফ্রিকার লেগ স্পিনার ইমরান তাহির ১০ ওভারে ৪১ রান খরচায় তুলে নেন দুটি উইকেট। পাকিস্তানের দুই ওপেনারকে বিদায় করা এই লেগি প্রোটিয়াদের হয়ে বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ উইকেট (৩৯) শিকারির তালিকায় নাম লেখালেন। তার আগে ৩৮ উইকেট নিয়েছিলেন পেসার অ্যালান ডোনাল্ড। কেগিসো রাবাদা ১০ ওভারে ৬৫ রান দিয়ে কোনো উইকেট পাননি। লুঙ্গি এনগিধি ৯ ওভারে ৬৪ রান দিয়ে পান তিনটি উইকেট। আন্দেইল ফেলুকাওয়ো ৮ ওভারে ৪৯ রান দিয়ে পান একটি উইকেট। ক্রিস মরিস ৯ ওভারে ৬১ রান দিয়ে কোনো উইকেট পাননি। ৪ ওভারে ২২ রান দিয়ে একটি উইকেট পান এইডেন মার্কারাম।

    ৩০৯ রানের টার্গেটে ব্যাটিংয়ে নেমে প্রোটিয়া ওপেনার হাশিম আমলা ব্যক্তিগত ২ রানে বিদায় নেন। সেট হয়ে যাওয়া আরেক ওপেনার কুইন্টন ডি কক ৬০ বলে তিনটি চার আর দুটি ছক্কায় করেন ৪৭ রান। দলপতি ফাফ ডু প্লেসিস ৭৯ বলে পাঁচটি বাউন্ডারিতে করেন ৬৩ রান। এইডেন মার্কারাম ৭ রান করে ফেরেন সাজঘরে।

    রানের চাকা সচল রাখেন ভ্যান ডার ডুসেন। ৪৭ বলে একটি করে চার-ছক্কায় ৩৬ রান করেন। ডেভিড মিলার ৩৭ বলে তিন বাউন্ডারিতে করেন ৩৬ রান। ক্রিস মরিস ১৬ রান করেন। কেগিসো রাবাদা ৩ রানে বিদায় নেন। লুঙ্গি এনগিধি ১ রান করে ৪৯তম ওভারে বিদায় নেন। আন্দেইল ফেলুকাওয়ো ৩২ বলে ৬টি চারের সাহায্যে ৪৬ রান করে অপরাজিত থাকেন। ইমরান তাহির ১ রানে অপরাজিত থাকেন।

    শাদাব খান ১০ ওভারে ৫০ রানের বিনিময়ে তুলে নেন তিনটি উইকেট। ১০ ওভারে ৪৮ রান দিয়ে উইকেট পাননি ইমাদ ওয়াসিম। মোহাম্মদ হাফিজ ২ ওভারে ১১ রান দিয়ে কোনো উইকেট পাননি। ওয়াহাব রিয়াজ ১০ ওভারে ৪৬ রান দিয়ে তুলে নেন তিনটি উইকেট। শাহিন শাহ আফ্রিদি ৮ ওভারে ৫৪ রান খরচায় পান একটি উইকেট। মোহাম্মদ আমির ১০ ওভারে ৪৯ রান দিয়ে পান ২টি উইকেট।

    বিশ্বকাপের শুরুটা ভালো হয়নি প্রোটিয়াদের। হারলো মাঠে গড়ানো ছয় ম্যাচের পাঁচটিতে, জয় পেয়েছে কেবল আফগানিস্তানের বিপক্ষে আর পরিত্যক্ত হয়েছে উইন্ডিজের বিপক্ষের ম্যাচটি। অন্যদিকে পাকিস্তানের অবস্থাও নাস্তানাবুদ। মাঠে এবং মাঠের বাইরে সব জায়গাতেই চাপে আছে পাকিস্তান ক্রিকেট দল। বিশ্বকাপের সেমি ফাইনালে খেলার সম্ভাবনা যদি-কিন্তুর ওপর। ছয় ম্যাচের তিনটিতে হেরেছে, দুটিতে জয় আর একটি ম্যাচ পরিত্যক্ত।

    দক্ষিণ আফ্রিকা একাদশ: ফাফ ডু প্লেসিস (অধিনায়ক), হাশিম আমলা, কুইন্টন ডি কক, এইডেন মার্করাম, ডেভিড মিলার, ইমরান তাহির, আন্দেইল ফেলুকাওয়ো, কেগিসো রাবাদা, ক্রিস মরিস, লুঙ্গি এনগিধি এবং ভ্যান ডার ডুসেন।

    পাকিস্তান একাদশ: সরফরাজ আহমেদ (অধিনায়ক ও উইকেটরক্ষক), বাবর আজম, ফখর জামান, হারিস সোহেল, ইমাদ ওয়াসিম, ইমাম-উল-হক, মোহাম্মদ হাফিজ, শাদাব খান, শাহীন শাহ আফ্রিদি, মোহাম্মদ আমির এবং ওয়াহাব রিয়াজ।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    লিটনের প্রথম সেঞ্চুরি

    ২৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে দৈনিক আজকের দেশ বিদেশ