বুধবার ২৫শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

বেতন নেই লাখো মার্কিনির, জরুরি অবস্থার হুমকি ট্রাম্পের

দেশবিদেশ অনলাইন ডেস্ক   |   শুক্রবার, ১১ জানুয়ারি ২০১৯

বেতন নেই লাখো মার্কিনির, জরুরি অবস্থার হুমকি ট্রাম্পের

কংগ্রেসের অনুমোদন ছাড়াই যুক্তরাষ্ট্র- মেক্সিকো সীমান্তে দেয়াল নির্মাণের জন্য তহবিল সংগ্রহে জরুরি অবস্থা জারি করা হবে বলে আবারো হুমকি দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

তিনি বলেন, আমার জাতীয় জরুরি অবস্থা ঘোষণা করার অধিকার রয়েছে। বৃহস্পতিবার মেক্সিকো সীমান্তের টেক্সাস অংশ পরিদর্শনে গিয়ে এ হুমকি দেন।

মেক্সিকো দেয়াল নিয়ে রিপাবলিকান ও ডেমোক্রেটদের পাল্টাপাল্টি অবস্থানে ২২ ডিসেম্বর থেকে মার্কিন কেন্দ্রীয় সরকারের অসংখ্য বিভাগ ও সংস্থায় অচলাবস্থা দেখা দেয়। ২০ দিন ধরে বেতন পাচ্ছেন না লাখ লাখ মার্কিনি। প্রায় ৮ লাখ কেন্দ্রীয় সরকারের কর্মচারীরা বেতন ছাড়াই আছেন।

দেয়াল নির্মাণের জন্য অর্থ বরাদ্দ দেওয়া না হলে ট্রাম্প কোনো অর্থবিলে স্বাক্ষর করবেন না বলে জানিয়েছেন, এবং তাই করছেন তিনি। ফলে মার্কিন সরকারের বিভিন্ন সংস্থা ও বিভাগের ব্যয় নির্বাহে প্রয়োজনীয় অর্থ সংস্থানের বিল আলোর মুখ দেখেনি। আর এতেই বিপাকে পড়েছে মার্কিন প্রশাসন। জরুরি অবস্থা জারি করেই এই অচলাবস্থা নিরসনের বিষয়টি ভাবা হচ্ছে বলেও জানিয়েছেন ট্রাম্প।

জরুরি অবস্থা জারি হলে কংগ্রেসের ডেমোক্রেট সদস্যরা এর বিরুদ্ধে আইনি লড়াইয়ে নামতে পারবেন। যে লড়াইয়ে সহজেই জিতে যাবেন বলে ধারণা করছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

অচলাবস্থা নিরসনে বুধবার ডেমোক্র্যাট নেতাদের সঙ্গে আলোচনায় বসেছিলেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। কিন্তু সেই বৈঠক ওয়াক-আউট করেন তিনি। হাউজ স্পিকার ন্যান্সী পেলোসী এবং সিনেট সংখ্যালঘু দলের নেতা চাক শুমার মেক্সিকোর সীমান্তে দেয়াল নির্মাণের জন্য অর্থ বরাদ্দ না করার ব্যাপারে আগের অবস্থানে অটল থাকলে ট্রাম্প আলোচনা থেকে বেড় হয়ে আসেন।

হাউজ স্পিকার ন্যান্সী পেলোসী বলেছেন, বিপুল সংখ্যক কেন্দ্রীয় কর্মচারীদের বেতন দিতে না পারাটা একই সঙ্গে আরেকটা ক্ষতি। প্রেসিডেন্ট মনে হচ্ছে তাদের প্রতি অসংবেদনশীল হচ্ছেন। তিনি (ট্রাম্প) হয়তবা মনে করছেন তারা তাদের বাবার কাছে অর্থ চাচ্ছেন।

চাক শুমার সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, পেলোসী যখন দেয়াল নির্মাণের বিষয়ে অর্থ বরাদ্দে অনুমোদন দিতে রাজি হননি তখনি প্রেসিডেন্ট আলোচনার মাঝখানে উঠে চলে যান।

এর আগে ট্রাম্প স্পিকার পেলোসীকে জিজ্ঞেস করেন, আপনি কী আমার দেয়াল নির্মাণের ব্যাপারে রাজী আছেন? জবাবে স্পিকার বলেন ‘না’। এরপরই ট্রাম্প বৈঠক থেকে বের হয়ে আসেন।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প তার দেয়াল নির্মাণের বরাদ্দ বাবদ ৫ দশমিক ৭ বিলিয়ন বা ৫৭০ কোটি ডলার পাস করাতে চান। এটা অত্যন্ত ব্যয়বহুল এবং অকার্যকর বলে মনে করছেন ডেমোক্রেটরা।

যুক্তরাষ্ট্রে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের সময় ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন যে, তিনি যেকোনো মূল্যে দেয়াল নির্মাণ করবেন। তবে ডেমোক্রেটরা বলছেন, তারা জনগণের করের টাকায় এ প্রতিশ্রুতি পূরণ হতে দেবে না। খবর: বিবিসি

Comments

comments

Posted ৯:০৪ অপরাহ্ণ | শুক্রবার, ১১ জানুয়ারি ২০১৯

ajkerdeshbidesh.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

প্রকাশক
তাহা ইয়াহিয়া
সম্পাদক
মোঃ আয়ুবুল ইসলাম
প্রধান কার্যালয়
প্রকাশক কর্তৃক প্রকাশিত এবং দেশবিদেশ অফসেট প্রিন্টার্স, শহীদ সরণী (শহীদ মিনারের বিপরীতে) কক্সবাজার থেকে মুদ্রিত
ফোন ও ফ্যাক্স
০৩৪১-৬৪১৮৮
বিজ্ঞাপন ও সার্কুলেশন
01870-646060
Email
ajkerdeshbidesh@yahoo.com