• শিরোনাম

    ভারতে পা রাখলেন ট্রাম্প-মেলানিয়া

    দেশবিদেশ অনলাইন ডেস্ক | ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ২:২৮ অপরাহ্ণ

    ভারতে পা রাখলেন ট্রাম্প-মেলানিয়া

    প্রথমবারের মতো ভারতে পা রাখলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। এই সফরে তার সঙ্গী হয়েছেন স্ত্রী মেলানিয়া ট্রাম্প, মেয়ে ইভাংকা ট্রাম্প এবং জামাতা জেয়ার্ড কুশনার। আহমেদাবাদ বিমানবন্দরে তাদের অভ্যর্থনা জানিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

    গুজরাট প্রদেশের আহমেদাবাদ শহরের একটি ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বিশাল জনসমাবেশে ট্রাম্পকে স্বাগত জানানো হবে। ইতোমধ্যেই ওই স্টেডিয়ামে জনতার ঢল নেমেছে। সেখানে জনসমাবেশে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে ভাষণ দেবেন ট্রাম্প।

    প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে স্বাগত জানাতে আহমেদাবাদে রাস্তায় লাইন ধরে জড়ো হয়েছে হাজার হাজার মানুষ। তার এই সফরকে কেন্দ্র করে অনেক আগে থেকেই প্রস্তুতি নিচ্ছিল ভারত। ট্রাম্পের এই সফরে বিশ্বের বৃহত্তম গণতান্ত্রিক দেশ দু’টির মধ্যে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের ওপর জোর দেয়া হবে।

    গুজরাট দিয়ে ভারত সফর শুরু করবেন ট্রাম্প। এরপরেই ট্রাম্প যাবেন আগ্রার তাজমহল দেখতে। তারপর দিল্লিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে বৈঠক করবেন তিনি। তবে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের ভারত সফরে দু’দেশের মধ্যে বাণিজ্যিক চুক্তি হওয়ার সম্ভাবনা খুবই কম।

    সোমবার আহমেদাবাদ বিমানবন্দরে অবতরণ করে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের জেট এয়ার ফোর্সের একটি বিমান। প্রথমে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের মেয়ে ইভাংকা ট্রাম্প এবং তার স্বামী জেয়ার্ড কুশনার বিমান থেকে নেমে আসেন। এর কয়েক মিনিট পরেই বিমান থেকে নেমে আসেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প এবং মার্কিন ফার্স্ট লেডি মেলানিয়া ট্রাম্প।

    বিমানবন্দরে সমবেত জনতার উদ্দেশে হাত নাড়েন তারা। প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে স্বাগত জানিয়ে তাকে জড়িয়ে ধরেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ভারতে দু’দিনের সফর করবেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। এ নিয়ে আটজন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ভারতে সফর করল।

    যুক্তরাষ্ট্র ভারতের অন্যতম প্রধান বাণিজ্যিক অংশীদারী দেশ। ২০১৮ সালে দু’দেশের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য ১৪২ দশমিক ৬ বিলিয়ন ডলার। গত কয়েক বছরে দু’দেশের মধ্যে রাজনৈতিক এবং কৌশলগত সম্পর্ক অনেক এগিয়ে গেলেও বাণিজ্যিক ইস্যুতে এখনও সমস্যা রয়েই গেছে।

    গত পাঁচ বছরে মোদির সঙ্গে ট্রাম্পের ৮বার দেখা হয়েছে। দু’জনই দু’জনকে প্রকৃত বন্ধু বলে সম্বোধন করলেও একে অন্যের ওপর নতুন করে শুল্ক চাপিয়েছেন, বাদ দিয়েছে বিশেষ সুবিধাগুলো। ফলে বাণিজ্য চুক্তিগুলো আলোর মুখ দেখেনি।

    গত ১ ফেব্রুয়ারি ঘোষিত বাজেটে চিকিৎসা সরঞ্জামসহ যুক্তরাষ্ট্রের বেশ কিছু পণ্যে বাড়তি আমদানি শুল্ক বসিয়েছে ভারত। অ্যামাজনের মতো মার্কিন ই-কমার্স প্রতিষ্ঠানের বিষয়ে কড়া অবস্থান নিয়েছে ভারতের বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। তার ওপর যুক্তরাষ্ট্রের গরু আমিষ খাওয়ায় তাদের দুগ্ধ ও দুগ্ধজাত পণ্য আমদানি করা যাবে না বলে দাবি তুলেছে আরএসএসের স্বদেশি জাগরণ মঞ্চ।

    এসব কারণে ভারত পরিস্থিতি আরও কঠিন করে তুলেছে বলে দাবি করেছে ট্রাম্প প্রশাসনের। এছাড়া ভারতের রক্ষণশীলতাও বাধা হয়েছে দাঁড়িয়েছে বাণিজ্য চুক্তিতে। মতপার্থক্য বেড়েছে ই-কমার্স, ডিজিটাল ক্ষেত্রেও। ভারতের যুক্তি, যুক্তরাষ্ট্র নিজেরা ছাড় না দিয়ে বাণিজ্যের পরিধি বাড়াতে চাইছে। আর মার্কিন কর্মকর্তাদের মতে, বাণিজ্য চুক্তির জন্য ভারসাম্য দরকার। এর জন্য অনেক বাধা কাটাতে হবে। কিন্তু ভারত এখনও তার ধারেকাছেই যেতে পারেনি।

    গত সপ্তাহ পর্যন্ত এ নিয়ে দু’দেশের মধ্যে বিস্তর আলোচনা হয়েছে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তারা কেউই ঐক্যমতে পৌঁছাতে পারেনি। ট্রাম্পের ভারত সফরের আগে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এক টুইট বার্তায় লিখেছেন, ভারত আপনার অপেক্ষায় আছে। খুব শিগগিরই আহমেদাবাদে দেখা হচ্ছে। অপরদিকে, ট্রাম্পও তার সফরের আগে এক টুইট বার্তায় লিখেছেন, মেলানিয়াকে নিয়ে ভারতের উদ্দেশে যাত্রা।
    দেশবিদেশ/নেছার

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে দৈনিক আজকের দেশ বিদেশ