মঙ্গলবার ১লা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ডেঙ্গু প্রতিরোধে র‌্যালী ও সভা অনুষ্ঠিত

নিজস্ব প্রতিনিধি, উখিয়া     |   শুক্রবার, ০৯ আগস্ট ২০১৯

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ডেঙ্গু প্রতিরোধে র‌্যালী ও সভা অনুষ্ঠিত

ডেঙ্গু সংক্রমণের ঝুঁকি হ্রাস করতে দেশ ব্যাপী সচেতনতামূলক অভিযানের অংশ হিসেবে উখিয়া উপজেলা রোহিঙ্গা ক্যাম্প গুলোতে শুরু হয়েছে পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম।
বৃহস্পতিবার (৮ আগস্ট) সকাল ১১টায় উখিয়ার ৫ নং ক্যাম্পে এ উপলক্ষে এক র‌্যালী  অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রত্যাবাসন কমিশনার, সিভিল সার্জন, সরকারী-বেসরকারী সংস্থা, আন্তর্জাতিক সংস্থা, আইএনজিও,এনজিও,রোহিঙ্গা কমিউনিটির লিডার এবং শিক্ষিত রোহিঙ্গা নারী-পুরুষ অংশ গ্রহন করেন।
র‌্যালী  শেষে ক্যাম্প ইনচার্জের কার্যালয়ে এক সচেতনতামূলক সভার আয়োজন করা হয়। সভায় অতিরিক্ত শরনার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার কাজী মুহাম্মদ মোজাম্মেল হক বলেন,  আমাদের সকল অংশীদারদের প্রচেষ্টার জন্য ঝুঁকি নিরসনে সকল ক্ষেত্র কে সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সংবেদনশীল করা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, ডেঙ্গু প্রতিরোধে সহায়তা করার জন্য প্রতিটি সম্প্রদায়ের সদস্যের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা দরকার রয়েছে।

বক্তব্যে ক্যাম্প ইনচার্জ শেখ রাসেল বলেন, ক্লিন ক্যাম্প নিশ্চিত করতে এবং ডেঙ্গু ছড়িয়ে পড়া বন্ধ করতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। রোহিঙ্গাদের অগ্রিম ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়ে কক্সবাজার সিভিল সার্জন ডাঃ মোহাম্মদ আবদুল মতিন বলেন, মিয়ানমারের নাগরিকদের তাদের পরিবারকে ডেঙ্গু ও অন্যান্য রোগ থেকে নিরাপদ রাখতে প্রয়োজনীয় সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে।

তিনি বলেন, মূলত অপরিষ্কার-অপরিচ্ছন্ন ও সচেতনতা অভাবেন কারনে ডেঙ্গুর প্রকোপ সৃষ্টি হচ্ছে। তাই এ ব্যাপারে রোহিঙ্গাসহ স্থানীয়দের বেশি বেশি সচেতনতা সৃষ্টির দরকার। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডাব্লিউএইচ) এর সমন্বয়ক ডাঃ বালবিন্দর সিং বলেন, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা উন্নত নজরদারি কার্যক্রমের মাধ্যমে ডেঙ্গু ভাইরাস নিয়ে সাম্প্রতিক ঘটনাগুলি ঘনিষ্ঠভাবে পর্যবেক্ষণ করছে এবং স্থানীয় জনগোষ্ঠী ও রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীসহ বাংলাদেশের ঝুঁকি নির্ধারণে সরকারকে সহায়তা করছে।

সভায় রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর পক্ষে একাধিক প্রতিনিধি এ বিষয়ে বক্তব্য রাখেন। তারা বলেন, এডিস মশা উৎপাদন, প্রজনন ও সংক্রমনের বিষয়ে মসজিদসহ বাড়ি বাড়ি গিয়ে তারা রোহিঙ্গাদের সতর্ক করবেন এবং তারা ডেঙ্গু প্রতিরোধের বিষয়ে সরকারের মহৎ উদ্যোগের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।
উল্লেখ্য, ডেঙ্গু খুব সকালে এবং সন্ধ্যার আগে কামড়িয়ে থাকেন। খুব সকালে ঘরের ভিতরে মশার কয়েল ব্যবহার, হালকা রঙের পোশাক, লম্বা হাতা কাপড়, যতটা সম্ভব শরীর ঢেকে রাখা এবং মশারির নিচে ঘুমানো, এডিস মশার কামড় থেকে নিজেকে রক্ষা করতে পারে। ডেঙ্গু একটি দ্রুত গতিতে ছড়িয়ে পড়া মশা বাহিত রোগ গুলির মধ্যে একটি, যা বর্তমানে বাংদেশ এবং দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া অঞ্চলে জনস্বাস্থ্যের এক বড় উদ্বেগ হিসাবে দাড়িয়েছে।

Comments

comments

Posted ১:৪০ পূর্বাহ্ণ | শুক্রবার, ০৯ আগস্ট ২০১৯

ajkerdeshbidesh.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সম্পাদক
মোঃ আয়ুবুল ইসলাম
প্রধান কার্যালয়
প্রকাশক : তাহা ইয়াহিয়া কর্তৃক প্রকাশিত এবং দেশবিদেশ অফসেট প্রিন্টার্স, শহীদ সরণী (শহীদ মিনারের বিপরীতে) কক্সবাজার থেকে মুদ্রিত
ফোন ও ফ্যাক্স
০৩৪১-৬৪১৮৮
বিজ্ঞাপন ও সার্কুলেশন
০১৮১২-৫৮৬২৩৭
Email
ajkerdeshbidesh@yahoo.com