বুধবার ২৭শে জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৩ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

পৌর আঃ লীগ সম্মেলনে দুই নম্বর ওয়ার্ড

সভাপতি ও সম্পাদকের পদে ৪৮ জন প্রার্থী

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   মঙ্গলবার, ০৫ নভেম্বর ২০১৯

সভাপতি ও সম্পাদকের পদে ৪৮ জন প্রার্থী

অবিশ্বাস্য হলেও সত্য যে, আওয়ামী লীগের চলমান তৃণমূল প্রতিনিধি সম্মেলনের একটি ওয়ার্ড কমিটিতে সভাপতি পদের জন্য ৩৬ জন প্রার্থী হয়েছেন। সেই সাথে একই ওয়ার্ডের দলটির সাধারণ সম্পাদক হতে প্রার্থী হয়েছেন ১২ জন। গতকাল মঙ্গলবার কক্সবাজার পৌর আওয়ামী লীগের ২ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সির অধিবেশনে এসব প্রতিদ্বন্ধি প্রার্থীদের নাম-পরিচয় ঘোষণা করা হয়।

জানা গেছে, ওয়ার্ডের কাউন্সিলার হচ্ছেন মাত্র ১৫০ জন। তন্মধ্যে অর্ধেক কাউন্সিলার অর্থাৎ ৭৫ জনই সভাপতি এবং সাধারণ সম্পাদকের প্রার্থী হতে মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ করেন। পরে অনেকেই প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নেন। শেষাবধি ৩৬ জন সভাপতি এবং ১২ জন সাধারণ সম্পাদকের পদে সহ ৪৮ জন প্রার্থী লড়তে অনড় সিদ্ধান্তের কথা জানান। একই পদে এত বেশী প্রার্থী হওয়ার কারনে অপ্রীতিকর পরিস্থিতি সামাল দিতে নেতৃবৃন্দ প্রার্থীদের সমঝোতায় আসার জন্য সময় দিয়ে সম্মেলন শেষ করেন।
সারা দেশের মত কক্সবাজার জেলারও বিভিন্ন ওয়ার্ড পর্যায়ে চলছে দলটির তৃণমূল প্রতিনিধি সম্মেলন। গতকাল কক্সবাজার পৌরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ডের সম্মেলন অনুষ্টিত হয়েছে স্থানীয় বিমান বন্দর উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে। ওয়ার্ড সভাপতি আবদুল্লাহ আল মাসুদের সভাপতিত্বে অনুষ্টিত সম্মেলনে প্রধান অতিথি ছিলেন কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট সিরাজুল মোস্তফা ও বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান।

সম্মেলন উদ্ভোধন করে পৌর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোহাম্মদ নজিবুল ইসলাম প্রার্থীদের নাম ঘোষণা করে তাদের পরিচয় করিয়ে দেন। পৌর আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক এবি ছিদ্দিক খোকন জানান-‘ কক্সবাজার পৌরসভার ভিআইপি ওয়ার্ড হচ্ছে এটি। তাই ওয়ার্ডটিতে এত বিপুল সংখ্যক সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী হয়েছেন।’ তিনি জানান, এর আগে অনুষ্টিত এক নম্বর ও ৫ নম্বর ওয়ার্ডের সম্মেলনে সভাপতি প্রার্থী ছিলেন একজন করে এবং সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী ছিলেন দুইজন করে।

কক্সবাজার পৌর আওয়ামী লীগের টানা ২২ বছর ধরে সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালনকারি দলীয় প্রবীণ নেতা মোহাম্মদ হোছাইন বলেন-‘ ১৯৭৫ সালের ১৫ আগষ্টের পর আমরা দলীয় পদ নেয়ার কোন লোকই খুঁজে পাইনি। অনেক কর্মীকে জোর করে পদবীতে নাম দিতে রাজি করা হত। কিন্তু এখন সবাই দলের নেতা হতে চান। মনে হয় এখন পদের লাভ অনেক বেশী।’

Comments

comments

Posted ১১:৩৫ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ০৫ নভেম্বর ২০১৯

ajkerdeshbidesh.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

সম্পাদক
মোঃ আয়ুবুল ইসলাম
প্রধান কার্যালয়
প্রকাশক : তাহা ইয়াহিয়া কর্তৃক প্রকাশিত এবং দেশবিদেশ অফসেট প্রিন্টার্স, শহীদ সরণী (শহীদ মিনারের বিপরীতে) কক্সবাজার থেকে মুদ্রিত
ফোন ও ফ্যাক্স
০৩৪১-৬৪১৮৮
বিজ্ঞাপন ও সার্কুলেশন
০১৮১২-৫৮৬২৩৭
Email
ajkerdeshbidesh@yahoo.com