• শিরোনাম

    সোনাদয়িায় বজোর স্থাপনার পাশে হাজার হাজার ঝাউগাছ র্কতন

    দীপক র্শমা দীপু | ০৯ অক্টোবর ২০১৮ | ১:২১ পূর্বাহ্ণ

    সোনাদয়িায় বজোর স্থাপনার পাশে হাজার হাজার ঝাউগাছ র্কতন

    মহশেখালীর সোনাদয়িা দ্বীপে ১০ হাজাররে বশেি ঝাউগাছ র্কতন করা হয়ছে।ে সোনাদয়িার পশ্চমি দকি থকেে শুরু হয়ছেে গাছ র্কতন। পরকিল্পতিভাবে ঝাউগাছ কটেে ন্যাড়া করা হচ্ছে সোনাদয়িা। আর বজোর স্থাপনার পাশে এসব গাছ র্কতন করা হয়ছে।ে
    সরজেমনিে দখো যায়, সোনাদয়িার পশ্চমি পাশ^ের নদী সংলগ্ন এলাকায় প্রায় ৫ একর ঝাউবাগান ন্যাড়া করে ফলে।ে বাংলাদশে র্অথনতৈকি অঞ্চল কতৃপক্ষ বজোর নর্মিতি একটি স্থাপনার আশে পাশে ঝাউগাছ র্কতন হয়ছে।ে এখানো রয়ছেে গাছ কাটা অব্যাহত। পশ্চমি থকেে ঘাট র্পযন্ত প্রায় ৭ কলিোমটিার ঝাউবনরে ভতিরে প্রায় ৮ হাজাররে বশেি গাছ র্কতন হয়ছে।ে আর ঘাট থকেে মধ্যপাড়া র্পযন্ত কাটা হয়ছেে ৩ হাজাররে বশেি গাছ। তবে এখনো অক্ষত রয়ছেে র্পূব পাশ^ের ঝাউগাছ।
    স্থানীয় শুটকি ব্যবসায়ী আবদু শুক্কুর জানান, আগে জলেরো তাদরে কাজরে প্রয়োজনে কয়কেটি গাছ কটেে নয়ে। কন্তিু এখন সোনাদয়িার বভিন্নি পয়ন্টেে ২০/৩০ জন শ্রমকি দয়িে গাছ কাটা হচ্ছ।ে সোনাদয়িাকে ঝাউগাছ শূণ্য করার পরকিল্পনা নয়িে এভাবে কাটা হচ্ছে ঝাউবন।
    পরবিশেবাদী সংঠন কক্সবাজার বন ও পরবিশে সংরক্ষণ পরষিদরে সাধারণ সম্পাদক আজমল হুদা জানান, প্রতদিনি শত শত গাছ কাটা হলওে সংশ্লষ্টি বনবভিাগরে কোন খবর নইে। তারা দখেওে না দখোর ভান করে গাছ র্কতনকারদিরে সুযোগ করে দচ্ছি।ে এই ব্যাপারে দ্রুত ব্যবস্থা না নলিে সোনাদয়িার প্রকৃতরি সৌর্ন্দয রক্ষায় আন্দোলনরে র্কমসূচি দয়ো হব।ে
    কক্সবাজার উপকূলীয় বনবভিাগরে সহকারি বন সংরক্ষক অতরিক্তি দায়ত্বিপ্রাপ্ত মো: হোসনে বলনে, সোনাদয়িার ঝাউগাছ কাটার বষিয়ে অবহতি নয়। সোনাদয়িার জমি এখন বজোর আওতায়। তবে তাই বলে গাছ কাটার জন্য কাউকে অনুমতি দয়ো হয়ন।ি সোনাদয়িার ঝাউগাছ রক্ষায় দ্রুত ব্যবস্থা নয়ো হব।

    দেশবিদেশ /০৮ অক্টোবর ২০১৮/নেছার

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে দৈনিক আজকের দেশ বিদেশ