• শিরোনাম

    নাগরিক সভায় বক্তারা

    সড়ক দুর্ভোগ থেকে মুক্তি চান পৌরবাসী

    নিজস্ব প্রতিবেদক | ১৪ জানুয়ারি ২০২০ | ১:২০ পূর্বাহ্ণ

    সড়ক দুর্ভোগ থেকে মুক্তি চান পৌরবাসী

    এককালে বিশে^ স্বাস্থ্যনগরীর তকমা ছিলো পর্যটন নন্দিনী কক্সবাজার শহরের। বালুকাময় সৈকতে প্রাকৃতিকভাবে গড়ে উঠেছিলো বিশাল ঝাউবিথিকা। দেশ-বিদেশ থেকে পর্যটকরা ভ্রমণে এখানে ছুটে আসতেন। তখন এতো কোলাহল ছিলো না। সড়ক ব্যবস্থাও ছিলো অনুন্নত। তবুও বর্তমানের চেয়ে ভালো ছিলো।
    সেই শহর এখন আর নেই। ইট, কংক্রিটের এই শহরের সব স্থানেই এখন শোকের ছায়া। চোখে না দেখলে বোঝা যাবে না এটি দেশের প্রধান পর্যটন শহর। মনে হবে যুদ্ধে ক্ষতবিক্ষত একটি শহর কক্সবাজার। আর আমরা সেই শহরেরই অভাগা বাসিন্দা। সব ধরনের নাগরিক সুবিধা থাকার যেন আমরা অসহায়। শুধুমাত্র সুষ্ঠু পরিকল্পনার অভাবে এই শহরের কাঙ্খিত উন্নয়ন সম্ভব হচ্ছে না।

    এমনিতেই শহরের মানুষ এক অসহনীয় জীবনযাত্রার অভিজ্ঞতার মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। তার উপর দীর্ঘ সময় ধরে চলাচলের প্রধান সড়ক প্রায় অচল। চারিদিকে ময়লার ভাগাড়ের কারণে দুর্গন্ধ আর দুর্গন্ধ। সামান্য বৃষ্টি হলেই ড্রেনের পানি সড়কের উপর দিয়ে চলে। ড্রেনগুলো দখলবাজদের অবৈধ দখলে চলে যাওয়ার কারণে এই অবস্থার সৃষ্টি। সবচেয়ে বেশি ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন গর্ভবতী নারী এবং শিশুরা। সড়কের এমন বেহাল অবস্থার কারণে সঠিক সময়ে গর্ভবতী নারীদের হাসপাতালে নেয়া যায় না। পাশাপাশি শিশুরা সঠিক সময়ে বিদ্যালয়ে যেতে পারছে না।
    সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ আশ^াস দিলেও তার বাস্তবায়ন নেই। ফলে আশ^াসে এখন ভরসা নেই। মানুষের পিঠ এখন দেয়ালে ঠেকে গেছে। সবাই এখন সোচ্চার। এই অবস্থা থেকে পরিত্রাণ চান। এই দুর্ভোগ থেকে মুক্তি না মিললে আন্দোলনে নামবে কক্সবাজারবাসী।
    গতকাল ১৩ জানুয়ারি বিকেলে কক্সবাজার প্রেস ক্লাব প্রাঙ্গনে অনুষ্ঠিত এক নাগরিক সভায় উপস্থিত বক্তারা এ কথা বলেন। প্রেস ক্লাব সাধারণ সম্পাদক মোঃ আবু তাহের’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত নাগরিক সভায় যাঁদের বিরুদ্ধে জনগণের ক্ষোভ রাষ্ট্রের সেই দুই প্রতিনিধি কক্সবাজার উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (কউক) চেয়ারম্যান লে.কর্নেল (অব.) ফোরকান আহমদ এবং কক্সবাজার পৌরসভার মেয়র মুজিবুর রহমানও উপস্থিত থেকে তাঁদের বক্তব্য তুলে ধরেন।

    সভায় কউক চেয়ারম্যান বলেন, আমরা নিয়মের কাছে বন্দী। অর্ডার (নির্দেশ) দিলেই কাজ শুরু হয়ে যাবে। এমন কোন ক্ষমতা আমাদের নেই। পুরনো প্রতিষ্ঠানের মতো কউক’র তহবিলে অর্থ নেই। কউক নিজস্ব অর্থ থেকে ইতঃপূর্বে ৩ বার প্রধান সড়কের সংস্কার করা হয়। আজও (গতকাল) সকাল (এরপর পৃষ্ঠা-২ ঃ কলাম- ১)
    চান পৌরবাসী
    থেকে সংস্কার কাজ শুরু হয়েছে। এক সপ্তাহের মধ্যেই কাজ শেষ করার নির্দেশ দিয়েছি। আগামি ৩ দিনের মধ্যেই অন্তত প্রধান সড়কের গর্তগুলো সংস্কার করা হবে।

    কক্সবাজার পৌরসভার মেয়র মুজিবুর রহমান বলেন, নিয়মের বাইরে কাজ শুরু করার ক্ষমতা আমার নেই। ওয়ার্ল্ড ব্যাংক (বিশ^ ব্যাংক) থেকে যে টাকা দেয়ার কথা তা ফেরত গিয়েছিলো। অনেক কষ্ট করে সেই টাকা আনার ব্যবস্থা করেছি। কাজ করতে গেলেই বিভিন্ন মহল থেকে আমার কাছে অনুরোধ আসে। আমাদের দলের অনেক নেতারাও অনেক সময় অন্যায় আবদার করেন। তারপরও আমি ফজর থেকে রাত পর্যন্ত কাজ করে যাচ্ছি। আমার বয়স এখন ৬২ বছর। আগের মতো কাজ করতে পারিনা। আপনাদের নিয়েই পৌরসভার সার্বিক উন্নয়ন করে যাবো।

    সভায় অন্যান্যের মধ্যে জ্যেষ্ঠ সাংবাদিক তোফায়েল আহমদ, কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগ নেতা অ্যাডভোকেট আয়াচুর রহমান, সাংস্কৃতিক সংগঠক তাপস রক্ষিত, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা রাশেদুল ইসলাম, দৈনিক কক্সবাজারের পরিচালনা সম্পাদক মুজিবুল ইসলাম, কক্সবাজার পৌরসভার প্যানেল মেয়র (১) মাহাবুবুর রহমান মাবু, কক্সবাজার জেলা যুবলীগ সভাপতি সোহেল আহমদ বাহাদুর, সাধারণ সম্পাদক শহীদুল হক সোহেল, কক্সবাজার জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক অনুপ বড়–য়া অপু, প্রথম আলোর নিজস্ব প্রতিনিধি আব্দুল কুুদ্দুছ রানা, জেলা জাপা নেতা ও দৈনিক কক্সবাজার ৭১ সম্পাদক রুহুল আমিন সিকদার, দৈনিক হিমছড়ির ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক হাসানুর রশীদ, দৈনিক সকালের কক্সবাজার সম্পাদক ফরহাদ ইকবাল, সুশাসনের জন্য নাগরিক (সুজন) কক্সবাজারের সাধারণ সম্পাদক মাহাবুবুর রহমান, কক্সবাজার পৌরসভার প্যানেল মেয়র (৩) শাহেনা আক্তার পাখি, কাউন্সিলর হেলাল উদ্দিন কবির ও সালাহউদ্দিন সেতু, এপিপি সাকি-এ-কাউছার, আইনজীবী রেজাউর রহমান, ডেইজি ফাতেমা, সিভিল সোসাইটির সাধারণ সম্পাদক আ.ন.ম হেলাল উদ্দিন, ব্যবসায়ী জেবর মুল্লুক, ডাঃ সাজ্জাদ কাশেম, যুবলীগ নেতা কুতুবউদ্দিন, নাগরিক আন্দোলন নেতা নজরুল ইসলাম, আমিরুল ইসলাম রাশেদ, পরিকল্পিত আন্দোলন কক্সবাজারের সমন্বয়ক আব্দুল আলিম নোবেল, ছাত্র ইউনিয়ন নেতা অন্তিক চক্রবর্তী প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।
    এ সময় উপস্থিত ছিলেন, কক্সবাজার পৌরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান নুরুল আবছার, কক্সবাজার চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রিজ’র সভাপতি আবু মোর্শেদ চৌধুরী খোকা, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা অ্যাডভোকেট রঞ্জিত দাশ, সিভিল সোসাইটির সভাপতি ফজলুল কাদের চৌধুরী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    মাতারবাড়ী ঘিরে মহাবন্দর

    ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

    আর্কাইভ

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে দৈনিক আজকের দেশ বিদেশ